নভেম্বর ২৫, ২০২০ ৮:৪৪ অপরাহ্ণ

চট্টগ্রামে ৪৯তম জাতীয় সমবায় দিবস পালন

শেয়ার করুন

চট্টগ্রামের অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার (উন্নয়ন) মোহাম্মদ মিজানুর রহমান বলেছেন, সম্মিলিত প্রয়াসের মাধ্যমে আর্থ-সামাজিক উন্নয়নের মাধ্যম হলো সমবায়। তিনি বলেন স্বাধীনতার ঊষালগ্নে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান সমবায়কে উন্নয়নের অন্যতম কৌশল হিসেবে গ্রহণ করে সমবায়ের মালিকানাকে বাংলাদেশের সংবিধানে দ্বিতীয় খাত হিসেবে স্বীকৃতি দিয়েছেন। তাই আসুন আমরা সবাই মিলে মিশে উৎপাদনমুখী পেশা ভিত্তিক সমবায় সমিতি গঠনের মাধ্যমে কর্মসংস্থান সৃষ্টি করি, দারিদ্র্য বিমোচনসহ দেশের সুষম উন্নয়নে অংশীদার হই এবং মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর ঘোষিত দিন বদলের সনদ বাস্তবায়নে শরীক হই। চট্টগ্রামের অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার (উন্নয়ন) আজ ৭ নভেম্বর শনিবার সকালে চট্টগ্রাম সার্কিট হাউজ সম্মেলন কক্ষে ৪৯তম জাতীয় সমবায় দিবস উপলক্ষে চট্টগ্রাম বিভাগীয় সমবায় দপ্তর আয়োজিত অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন।
আজ সকাল ১০ টায় জাতীয় পতাকা ও সমবায় পতাকা উত্তোলনের মধ্য দিয়ে দিবসের মূল কার্যক্রম শুরু হয়। সভায় স্বাগত বক্তব্য রাখেন চট্টগ্রাম জেলা সমবায় অফিসার শেখ কামাল হোসেন। এ ছাড়া বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন চট্টগ্রাম বিভাগীয় সমবায় দপ্তরের যুগ্ম-নিবন্ধক আশীষ কুমার বড়ুয়া। চট্টগ্রাম বিভাগীয় সমবায় দপ্তরের উপ-নিবন্ধক কানিজ ফাতেমা ও জেলা সমবায় কার্যালয়ের উপ-সহকারী নিবন্ধক মুরাদ আহাম্মদের সঞ্চালনায় অনুষ্ঠিত সমাবেশে সভাপতিত্ব করেন চট্টগ্রামের অতিরিক্ত জেলা প্রসাশক (সার্বিক) এ, জেড, এম শরীফ হোসেন। বক্তব্য রাখেন পাঁচলাইশ থানা সমবায় অফিসার শহিদুল ইসলাম, ডবলমুরিং থানা সমবায় অফিসার সুমিত কুমার দত্ত, কোতোয়ালী থানা সমবায় অফিসার মোঃ আনিসুল ইসলাম ও চট্টগ্রাম জেলা সমবায় কার্যালয়ের জেলা অডিটর মোঃ সামসুদ্দিন ভূইয়া, পরিদর্শক আবু বকর, মোহাম্মদ ওছমান গনি, অর্পণ দাশ গুপ্ত, মোহাম্মদ সাজ্জাদ হোসেন প্রমুখ। বিভিন্ন সমবায় সমিতির নেতৃবৃন্দ অনুষ্ঠানে বক্তব্য রাখেন। এ ছাড়া প্রধান অতিথির হাত থেকে শ্রেষ্ঠ সমবায় সমিতি সম্মাননা ও ক্রেষ্ট গ্রহণের মধ্যে দিয়ে অনুষ্ঠান শেষ হয়।


শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *