জানুয়ারি ১৮, ২০২১ ৩:৪২ পূর্বাহ্ণ

মানিকছড়িতে জমজ শিশু কন্যা ধর্ষণের দায়ে নিজ পিতা আটক

শেয়ার করুন

নুর আলম ওরফে আলম (৪৯) জমজ মাতৃহীন শিশু কন্যা বিথী আক্তার (১১) ও সাথী আক্তারকে (১১) একাধিকবার ধর্ষণ ও যৌন হয়রানী করতো। মানিকছড়ি সদর গুচ্ছগ্রামের  মোঃ নুর আলম  গত ৪ ডিসেম্বর রাতেও লম্পট পিতা কতৃর্ক মা হারা জমজ দুই বোন ধষর্ণের শিকার হয়। ফলে ধর্ষিত দুই বোন ঘটনাটি নানী মোছাম্মদ ফাতেমা আক্তার(৫৫) কে খুলে বললে বিষয়টি জানাজানি হয়। এক পর্যায়ে বিষয়টি নিয়ে থানায় আসেন ধর্ষিতাদের নানী ও অন্যরা । অফিসার ইনচার্জ ঘটনার বিবরণ শুনে পুলিশ পাঠিয়ে লম্পট আলমকে আটক করেন।

রাতে নারী ও শিশু নির্যাতন আইন ৯(১) ধারায় ধর্ষিতার নানী মোসাম্মদ ফাতেমা আক্তার বাদী হয়ে মানিকছড়ি থানায় মামলা করেন।(মামলা নংঃ ২/৪৭ তারিখ-০৫/১২/২০২০ ইং)।

অফিসার ইনচার্জ আমির হোসেন জানান, পিতা কর্তৃক জমজ শিশু কন্যা ধর্ষণের ঘটনাটি অত্যন্ত ঘৃনিত ও নিন্দনীয় কাজ। ধর্ষিত শিশুদের স্বীকারোক্তি ও বাদীর আর্জি (আবেদন) মোতাবেক ধর্ষক নুর আলম ওরফে আলমকে আটক প্র্বূক নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে মামলা রের্কড করে আজ ৬ ডিসেম্বর সকালে আসামিকে আদালতে এবং শিশু দুইটিকে ডাক্তারী পরীক্ষার জন্য খাগড়াছড়িতে প্রেরণ করা হয়েছে।


শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *